ইয়াবা

এবার নকল ইয়াবা আতঙ্ক ছড়াচ্ছে

মাদকসেবীদের কাছে চাহিদা থাকায় বাজারে ছাড়া হয়েছে নকল ইয়াবা।

ক্ষতিকর রাসায়নিক উপাদান দিয়ে বানানো এসব ইয়াবা সেবনে মৃত্যুও হতে পারে। সম্প্রতি মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের কেন্দ্রীয় রাসায়নিক পরীক্ষায় পাওয়া গেছে নকল ইয়াবার প্রমাণ।

বেশ কিছুদিন ধরেই আলোচনায় ভেজাল মদ। কয়েকজনের মৃত্যুর পর অভিযানে বিদেশি ব্র্যান্ডের ভেজাল মদের কারখানার সন্ধানও পেয়েছে গোয়েন্দারা। স্পিরিট আর ক্ষতিকর রং মিশিয়ে বাজারে বিক্রি করছে একটি চক্র।

মদের রেশ কাটতে না কাটতেই এবার নতুন আতঙ্ক দেখা দিয়েছে ইয়াবা নিয়ে। সম্প্রতি বিভিন্ন সংস্থার হাতে উদ্ধার হওয়া বেশ কিছু ইয়াবা নকল প্রমাণিত হয়েছে।

এর আগেও জন্মনিয়ন্ত্রণ পিলের সাথে রং মিশিয়ে বানানো ইয়াবাও উদ্ধার করে গোয়েন্দারা।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের কেন্দ্রীয় প্রধান রাসায়নিক পরীক্ষাগারের তথ্য বলছে, নকল ইয়াবা তৈরি হচ্ছে মাত্র ২ থেকে ৩ টাকায়। ব্যবহার করা হচ্ছে ক্ষতিকর রাসায়নিক। যা রূপ নিচ্ছে বিষক্রিয়ায়।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের প্রধান রাসায়নিক পরীক্ষক ডা. দুলাল কৃষ্ণ সাহা বলেন, ইয়াবার মত দেখতে আমাদের কন্টাসেপ্টিক পিল লাল, এর মত দেখতে পেইন কিলার আছে।

এ দেশে সরাচর যে ইয়াবাটা আসে সেটা লালচে থাকে। এটাকে মডিফাই করার পর রঙটা ঠিক করতে পারে না।

নকল ইয়াবা সেবনে প্রথম পর্যায়ে মাদকসেবীরা সেভাবে উদ্দীপনা বোধ করে না। ফলে তারা বেশি পরিমাণে সেবন করে। এতে তাৎক্ষণিক মৃত্যুর ঝুঁকি থেকে যায়।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, নকল ইয়াবা সেবনে হৃদযন্ত্র, ফুসফুস, লিভার, কিডনি থেকে শুরু করে শরীরের গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গগুলো দ্রুত ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

এছাড়া নকল ইয়াবা সেবনে রক্তচাপ বৃদ্ধির পাশাপাশি, লিভার সিরোসিস ও লিভার ক্যান্সার হচ্ছে বলে জানান তারা।

আরও পড়ুন … 

মতামত দিন